নওগাঁ প্রতিনিধি প্রতিনিধি : নওগাঁর আত্রাইয়ে আরিফুল ইসলাম আরিফ (৩৮) নামের এক মাছ ব্যবসায়ীকে জবাই করে হত্যা মামলায় পিতা আবুবক্কর সিদ্দিক ও তার দ্বিতীয় স্ত্রী রাবিয়া বেগম রিনাকে আত্রাই থানাপুলিশ আটক করে থানায় নিয়ে গতকাল থেকে মঙ্গলবার দিনভর এই হত্যাকান্ডের মুটিভ উদ্ধারের জন্য দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ চালিয়ে যাচ্ছে। মঙ্গলবার এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত আরিফ হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত এমন কোনো রহস্য উদ্ঘাটন করতে পারেনি এমনটাই জানান, মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা। তবে তাদের জোড়ালো তৎপরতা অব্যাহত আছে বলে তিনি জানান। যে কোন সময় পুলিশের জালে ধরা পড়তে পারে মাছ ব্যবসায়ী আরিফ হত্যার সাথে সরাসরি জড়িতরা। রবিবার রাতে শয়ন ঘরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে জবাই করে হত্যা করেছে অজ্ঞাত দূর্বৃত্তরা। এ সময় তার স্ত্রী-সন্তারা কেউই বাড়িতে ছিলোনা। তারা প্রতিদিনের মতো উপজেলা সদরের ভাড়া বাসায় ছিলেন। খবর পেয়ে আত্রাই থানাপুলিশ সোমবার সকালেই মৃত দেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে। এঘটনায় নিহত আরিফুল ইসলাম আরিফের স্ত্রী মৌসুমী বেগম বাদি হয়ে আত্রাই থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।
মামলা তদন্তকারি কর্মকর্তা ও আত্রাই থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) গোলাম মোস্তফা জানান, আমরা দুই জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে এসেছি মামলা তদন্তের স্বার্থে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করছি । আশা করছি খুব শিঘ্রয় এই হত্যার রহস্য উদঘাটন হবে