ডেস্ক : ভারতের উত্তর প্রদেশে নিরাপত্তার অজুহাতে বিরোধী দল কংগ্রেসের সাবেক সভাপতি রাহুল গান্ধী ও তার বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে প্রবেশের অনুমতি দেয়নি পুলিশ। দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানায়, গত সপ্তাহে ভারতের পার্লামেন্টে বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাস হয়। বিলের প্রতিবাদে দেশজুড়ে বিক্ষোভ উত্তাল হয়ে ওঠে। পুলিশ বিক্ষোভ নিয়ন্ত্রণে আন্দোলনকারীদের ওপর গুলিবর্ষণ করে। এখনও পর্যন্ত পুলিশের গুলিতে মীরাটে অন্তত ১৫ জন মারা গেছেন। এছাড়া সেখানে ইন্টারনেট সেবা বন্ধ রয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে রাহুল গান্ধী ও প্রিয়াঙ্কা গান্ধী সেখানে গুলিতে নিহত পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে দেখা করার জন্য রওনা দিয়েছিলেন। কিন্তু পুলিশ তাদেরকে জানায়, মীরাটে অনেক মানুষের সমাবেশ নিষিদ্ধ। এই কারণে তারা সেখানে প্রবেশ করতে পারবেন না।

লাল সোয়েটার ও জিনস পরিহিত রাহুল গান্ধী জানান, ‘‘আমরা পুলিশের কাছে জানতে চাই, তাদের কাছে কোনো নির্দেশনা রয়েছে কি না। কিন্তু তারা কোনো নির্দেশনা দেখাতে পারেনি। কিন্তু তারা জানায়, আমাদের ফিরে যেতে হবে।”

তারপর রাহুলরা অন্তত তিনজনের একটি দল যেন সেখানে যেতে পারেন, তার অনুমতি চান। কিন্তু পুলিশ তাদের সে অনুরোধও অগ্রাহ্য করে।