সাব্বির হাসান গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধি ঃ বগুড়ার গাবতলীতে আব্দুল মোমিন (৩৫)নামের এক সিএনজি চালককে অতর্কিত হামলা চালিয়ে বেদমভাবে মারপিট ও ছুড়িকাঘাতে গুরুত্বর জখম করার ঘটনায় স্থানীয় চিহ্নিত সন্ত্রাসী পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল আলম নয়নকে প্রধান অভিযুক্ত করে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। গত ৯ফেব্রæয়ারী (রবিবার) রাতে ভিকটিমের ছোট ভাই মোঃ মানিক মিয়া বাদী হয়ে এই মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং-০৪।
মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, গাবতলী সদর ইউনিয়নের চকবোচাই গ্রামের মৃত ওসমান মন্ডলের ছেলে সিএনজি চালক আব্দুল মোমিন প্রতিদিনের ন্যায় সিএনজি নিয়ে বাড়ী থেকে বের হয়ে বগুড়া যাওয়ার জন্য গত মঙ্গলবার সকাল অনুমান সোয়া ১০টায় চকবোচাই বাজারে আসেন। এ সময় পূর্ব শত্রæতার জের ধরে স্থানীয় চিহ্নিত সন্ত্রাসী পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল আলম নয়নের নেতৃত্বে তার পোষ্য ক্যাডার বাহীনি বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্রেসস্ত্রে সজ্জিত হয়ে প্রকাশে জনসম্মুখে মোমিনের উপর অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে এলোপাতারীভাবে মারপিট ও ডান পায়ে ছুড়িকাঘাত করে। এতে কাটা রক্তাক্ত জখম হয়। এছাড়াও মাথাসহ শরীরের বিভিন্নস্থানে বেদমভাবে পিটিয়ে গুরুত্বর জখম করে। এ ঘটনায় ওইদিনই রাতেই ভূক্তভোগী মোমিনের ছোট ভাই বাদী হয়ে পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল আলম নয়নকে প্রধান করে ৭জনের নাম উল্লেখ্যসহ ৩/৪অজ্ঞাত বলে থানায় এজাহার দায়ের করেন। এজাহার দায়েরের ৫দিনপর গত ৯ফেব্রæয়ারী রাতে থানায় মামলাটি রেকর্ড করা হয়েছে। থানার ওসি সাবের রেজা আহমেদ মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, অভিযুক্তদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এ ব্যাপারে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (গাবতলী সার্কেল) সাবিনা ইয়াসমীনের সঙ্গে কথা বললে, আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে পুলিশ সোচ্চার রয়েছে। অপরাধী যেই হোক না কেনো তার কোন ছাড় নেই। উল্লেখ্য, স্থানীয় চিহ্নিত সন্ত্রাসী পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল আলম নয়নের বিরুদ্ধে মারপিটসহ একাধিক মামলা রয়েছে বলে একাধিকসূত্রে জানা গেছে।