শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি ঃ
বগুড়ার শাজাহানপুরে জনশুমারি ও গৃহগণনা ২০২১ কার্যক্রমে মাঠ পর্যায়ে তথ্য সংগ্রহের জন্য অস্থায়ী ভিত্তিতে গণনাকারী ও সুপারভাইজার পদে আবেদনকারীদের মৌখিক পরিক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

দশ দিনের এই চুক্তিভিত্তিক চাকরীর জন্য মৌখিক পরিক্ষার লড়াইয়ে উপজেলার হাজারো বেকার যুবক ও যুবমহিলা এবং ছাত্র-ছাত্রীদের সমাগম ঘটে। সোমবার সকাল ১০ টা থেকে উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তার কক্ষে ইউনিয়ন ভিত্তিক এই মৌখিক পরিক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

পরিসংখ্যান অফিস সূত্রে জানাগেছে, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো কর্তৃক বাস্তবায়নাধিন জনশুমারি ও গৃহগণনা ২০২১ এর লিষ্টিং অপারেশন এবং মূল শুমারির গণনাকার্যক্রমে গণনাকারী ও সুপারভাইজার পদে লোক নিয়োগের জন্য গত ২৩ জানুয়ারী বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। শুধুমাত্র উপজেলায় স্থায়ীভাবে বসবাসকারী বেকার যুবক ও যুব মহিলা এবং ছাত্র-ছাত্রীরা এই আবেদন করতে পারবেন। গণনাকারী পদে নূন্যতম এইচএসসি পাশ এবং সুপারভাইজার পদে স্নাতক বা সমমান হতে হবে। তবে পুরুষের চেয়ে নারী প্রার্থীদেরকে অগ্রাধিকার দেয়া হবে। নির্বাচিত গণনাকারীদের প্রত্যেকে নির্দিষ্ট ওয়ার্ডে ৪০০টি কিংবা এর কিছু কম-বেশী খানাগণনার ফর্ম পূরণ করতে হবে। আর সুপারভাইজারগন এর তদারকি করবেন। নিয়োগের ১০ দিনের মধ্য এই তালিকা প্রস্তুত করে জমা দিতে হবে।

মৌখিক পরিক্ষা দিতে আসা উপজেলার চকজোড়া গ্রামের তাসলিমা আকতার নামে অনার্স তৃতীয়বর্ষের এক ছাত্রী জানান, তিনি বগুড়া আজিজুল হক বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে বাংলায় অনার্স তৃতীয়বর্ষের ছাত্রী। লেখাপড়ার পাশাপাশি এই কাজের সুযোগ পেলে লেখাপড়ায় আর্থিক সহায়তা পাওয়া যেত।

২০১৬ সালে একই কলেজ থেকে ইসলামের ইতিহাস বিভাগে অনার্স মাষ্টার্স পাস করা মমেনা খাতুন নামে এক যুব নারী জানান, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রনালয়, দূর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), যুব উন্নয়ন সহ ৮-১০ টি দপ্তরে চাকরীর জন্য আবেদন করেছিলেন। এরমধ্যে দু’টি দপ্তরের পরিক্ষা বাকি আছে। লেখাপড়া শেষ করে চার বছর যাবদ বেকার বসে। বেকারত্বের অভিষাপ ঘোচাতে অন্তত এই ১০ দিনের চাকরীটা পাওয়ার আশায় আবেদন করতে এসেছেন।

যাচাই-বাছাই কমিটির সদস্য সচিব উপজেলা পরিসংখ্যান অফিসের জুনিয়র পরিসংখ্যান অফিসার (জেএসএ) জাহেদুল ইসলাম জানান, শাজাহানপুর উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন এবং এ উপজেলার অন্তর্গত বগুড়া পৌরসভার ১৩, ১৪ ও ২১ নং ওয়ার্ডে খানাগণনার জন্য গণনাকারী পদে ১৮৬ জন এবং সুপারভাইজার পদে ২৯ জনকে অস্থায়ী ভিত্তিতে নিয়োগ দেয়া হবে। এর মধ্যে গণনাকারী পদে ১০৬৯ এবং সুপারভাইজার পদে ১১৫ মোট ১১৮৫ টি আবেদন জমা পড়েছে। এর মধ্যে যাচাই-বাছাইয়ে শতাধিক আবেদন বাতিল হয়েছে। যাচাই-বাছাইয়ে উত্তির্ণ পৌর এলাকার আবেদনকারীদের মৌখিক পরিক্ষা পরে নেয়া হবে। শাজাহানপুর উপজেলার আবেদনকারীদের মৌখিক পরিক্ষার জন্য উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাগনকে প্রধান করে ইউনিয়ন ভিত্তিক পৃথক দশটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। কর্মকর্তাগন স্ব স্ব অফিস কক্ষে সোমবার সকাল ১০ টা থেকে এই পরিক্ষা গ্রহন করেন। পরিক্ষার ফলাফল প্রত্যেক দপ্তরের নোটিশ বোর্ডে যথা সময়ে লটকানো হবে।