নোতুন খবর.কম :
জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম বগুড়া ইউনিটের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে আলী আজগর ১৪৪ ভোট পেয়ে সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। এপদে তার প্রতিদ্বন্দ্বী শেখ মকলেছুর রহমান পেয়েছেন ১১৭ ভোট। সাধারণ সম্পাদক পদে মোজাম্মেল হক ১৩০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। এপদে অপর ২ প্রার্থী শারদুল হক ৭৩ ও এস এম মাসুদার রহমান স্বপন ২৩ ভোট পেয়েছেন। এছাড়াও অনান্য পদে বিজয়ীরা হলেন সিনিয়র সহ সভাপতি সুফিয়া বেগম কহিনুর, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোসলেম উদ্দিন লিটন ও সাংগঠনিক সম্পাদক আতাউর রহমান আতিক। ভোট গননা শেষে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ফলাফল ঘোষনা করেন।

সংগঠনের নির্বাচন কমিশনারের সদস্য এ্যাড, মো: আব্দুল বাছেদ জানান, শনিবার সকাল ১০ টা থেকে দুপুর ১ টা পর্যন্ত বগুড়া গওহর আলী বার ভবনে ভোট গ্রহন করা হয়। ২৮৪ জন সদস্যের মধ্যে ২৬৩ জন সদস্য তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।

জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম বগুড়া আয়োজিত নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য বগুড়া জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক এ্যাড. সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে এবং নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য এ্যাড. বাসেদ এর পরিচালনায় দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সচিব এ্যাড. ফজলুর রহমান।
সম্মেলনের উদ্বোধক হিসাবে বক্তব্য রাখেন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম আহবায়ক ব্যারিষ্টার কায়ছার কামাল। বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য বগুড়া পৌর মেয়র অ্যাডভাকেট একেএম মাহবুবর রহমান, সাবেক এমপি মোঃ হেলালুজ্জামান তালুকদার লালু, বগুড়া জেলা বিএনপির আহবায়ক ও বগুড়া-৬ আসনের সংসদ সদস্য গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ, সুপ্রিম র্কোট আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ব্যারিষ্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল, জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য এ্যাড. গাজী কামরুল ইসলাম সজল। এসময় উপস্থিত ছিলেন বগুড়া জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক ফজলুল বারী তালুকদার বেলাল, জেলা বিএরপি সাবেক সভাপতি রেজাউল করিম বাদশা, আলী আজগর তালুকদার হেনা, মাহবুবর রহমান বকুল, এম আর ইসলাম স্বাধীন, হামিদুল হক চৌধুরী হিরু, এ্যাড. শাহজাদী লায়লা, কেএম খায়রুল বাশার, সহিদ উন নবী সালাম, শেখ তাহা উদ্দিন নাইন, মাফতুন আহমেদ খান রুবেল, সাইদুজ্জামান শাকিল, মনিরুজ্জামান মনিরসহ জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম বগুড়া নেতৃবৃন্দ।