ডেস্ক : বুধ ও বৃহস্পতিবার সারাদেশে আকাশ মেঘাচ্ছন্ন থাকবে এবং গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। পরদিন শুক্রবার থেকে আবারো দেশের উত্তর, উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে মৃদু শৈত্য প্রবাহ বয়ে যেতে পারে। মঙ্গলবার আবহাওয়া অধিদপ্তরের বরাত দিয়ে এ খবর জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা বাসস।
বাসসের প্রতিবেদনে বলা হয়, মঙ্গলবার তেঁতুলিয়ায় দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৯ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এছাড়া রাজারহাটে ১০ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস, টাঙ্গাইল, রংপুর ও বদলগাছিতে ১০ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস, রাজশাহীতে ১০ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস, সৈয়দপুর ও ডিমলায় ১০ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়।রাজধানী ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ১৩ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বোচ্চ ২২ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, সারাদেশে আজ মধ্যরাত থেকে আগামীকাল সকাল পর্যন্ত মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা পড়তে পারে। পাশাপাশি আগামী ২৪ ঘণ্টায় আকাশ অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলাসহ শুষ্ক থাকতে পারে। সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে। তবে দিনের বেলায় ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস বৃদ্ধি পেতে পারে।
এর আগে গত ১৮ ডিসেম্বর থেকে সারাদেশে মৃদু শৈত্য প্রবাহ বয়ে যায়। দেশর দক্ষিণের জেলাগুলো মধ্যে ফরিদপুর, মাদারীপুর, গোপালগঞ্জ, বরিশাল, খুলনা ও যশোর এবং উত্তরের চুয়াডাঙ্গা, রাজশাহী, পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁওয়ে শীতের তীব্রতা সবচেয়ে বেশি ছিল। তবে ২২ ডিসেম্বর থেকে পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হওয়ায় সারাদেশে তাপমাত্রা বেড়েছে।